চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক আমলাতান্ত্রিক ক্ষমতার শোডাউন করছে।

0
46


বিশেষ প্রতিনিধি সিএনএন বাংলাদেশঃ-চট্টগ্রাম আইনজীবীবিদের এখতিয়ার বহিঃভূত ক্ষমতার শোডাউন দিয়ে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি সৃষ্টি করবেন না।
—চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের প্রতি আইনজীবী সমিতির আহবান।
চট্টগ্রাম পরীর পাহাড়ে আইনজীবী সমিতির ভবন নির্মাণকে কেন্দ্র করে জেলা প্রশাসকের সাথে সৃষ্ট বিরোধের জের ধরে আইনজীবি সমিতির সাধারণ সভায় এই আহবান জানানো হয় ।
আজ বুধবার চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির অডিটোরিয়ামে সমিতির সভাপতি এডভোকেট এনামুল হক এর সভাপত্বিতে আয়োজিত সভায় বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম জেলা বারের সাবেক সভাপতি ও জেলা পিপি এমকেএম সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, বার কাউন্সিল এডক কমিটির সদস্য মজিবুল হক, সাবেক পিপি আবদুর সাত্তার,৷ আবুল হাশেম, দেলোয়ার হোসেন, আনোয়ারুল ইসলাম চৌধুরী, শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, বদরুল আনোয়ার চৌধুরী, সৈয়দ মোক্তার হোসেন এ এইচ এম জিয়া উদ্দীন, আয়ুব খান, মনতোষ বড়ুয়া,অশোক দাশ, নাজিম উদ্দীন, আবদুল্লাহ আল মামুন সহ আইনজীবী সমিতির নেতৃবৃন্দ।
বক্তারা বলেন চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মমিনুর রহমান যোগদান করার পর থেকে আইনজীবীদের সাথে বিদ্বেষ পূর্ণ আচরণ ও উস্কানিমূলক বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছে। যার ধারাবাহিকতায় তিনি আইনজীবী ভবন নির্মাণে বিরোধিতা করে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে জেলা প্রশাসকের পক্ষে আইনজীবী ভবনের বিদ্যুৎ ও পানি সংযোগ বন্ধ করার জন্য চট্টগ্রাম ওয়াসা ও বিদ্যুৎ বিভাগকে চিঠি দিয়েছে।
বক্তারা বলেন চট্টগ্রাম আদালত ভবন, আইনজীবি ভবন ও অস্হায়ী ভিত্তিতে জেলা প্রশাসনের কার্যালয় রয়েছে, আমরা তিন বিভাগের লোকজন পরীর পাহাড় এলাকায় একসাথে দীর্ঘ কাল থেকে সমতার ভিত্তিতে যার যার কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে, ইদানীং জেলা প্রশাসন অযাচিত ভাবে এখতিয়ার বহিঃভূত উদ্যতপূর্ণ খবরদারি করতে চাচ্ছে যা আমলাতান্ত্রিক ক্ষমতার শোডাউনের বহিঃপ্রকাশ হিসেবে বিবেচিত।
এসব করে জনগণের সাথে প্রশাসনের, সরকারের সাথে বিবাদ সৃষ্টির অপচেষ্টা হিসেবে অভিহিত করেন।
জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক এ এইচ এম জিয়া উদ্দীন বলেন আইনজীবী সমিতি নিয়ম মেনে বৈধভাবে সমিতির নির্ধারিত স্হানে ভবন নির্মাণ করা হবে ।এতে জেলা প্রশাসক এখতিয়ার বহিঃভূত হস্তক্ষেপ করলে তা আইনজীবিরা আইনীভাবে প্রতিহত করা হবে।