দেশে এখন ভোটার প্রায় ১২ কোটি

0
8

দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করেছে নির্বাচন কমিশন, যেখানে মোট ভোটারের সংখ্যা এখন ১১ কোটি ৯৬ লাখ ১৬ হাজার ৬৩৩ জন।

বুধবার সবশেষ ভোটার সংখ্যার এ তথ্য জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

নভেম্বরের প্রথমার্ধে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার প্রস্তুতি চলছে। এ লক্ষ্যে আসনভিত্তিক ভোটার তালিকাও চূড়ান্ত করে ফেলেছে ইসি।

ইসির জনসংযোগ পরিচালক মো. শরিফুল আলম জানান, দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ১৪ সেপ্টেম্বর পযন্ত বাদ পড়া যোগ্য ভোটারদের তালিকাভুক্ত হওয়া ও ভোটার এলাকা স্থানান্তরের সুযোগ দেওয়া হয়েছিল। এ সময়ের মধ্যে যারা যুক্ত হয়েছেন তাদের নিয়েই চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

তিনি বলেন, “এখন সারাদেশে মোট ভোটার দাঁড়িয়েছে ১১ কোটি ৯৬ লাখ ৯১ হাজার ৬৩৩ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার ৬ কোটি ৭ লাখ ৭১ হাজার ৫৭৯ জন এবং নারী ভোটার ৫ কোটি ৮৯ লাখ ১৯ হাজার ২০২ জন। আর হিজড়া ভোটার রয়েছেন ৮৫২ জন।”

বৃহস্পতিবার বিকালে ভোটার তালিকা নিয়ে কথা বলেন এনআইডি উইংয়ের মহাপরিচালক এ কে এম হুমায়ুন কবীর (কোট পরা)।
এর আগে গেল মার্চে হালনাগাদ শেষে দেশের ভোটার ছিল ১১ কোটি ৯১ লাখ ৫১ হাজার ৪৪০ জন। এরপর নতুন ৫ লাখ ৪০ হাজার ১৯৩ জন যুক্ত হয়েছে।

২০১৮ সালে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় ভোটার ছিল ১০ কোটি ৪২ লাখ ৩৮ হাজার ৬৭৭ জন। সে হিসাবে পাঁচ বছরে দেশে ভোটার বেড়েছে ১ কোটি ৫৪ লাখ ৫২ হাজার ৯৫৬ জন।

ছবিসহ ভোটার তালিকা চালুর পর নবম সংসদ নির্বাচনে ৮ কোটি ১০ লাখ; দশম সংসদ নির্বাচনে ৯ কোটি ১১ লাখ, একাদশ সংসদে ১০ কোটি ৪১ লাখ ভোটার ছিল।

দেশে ভোটার এখন ১১ কোটি ৯১ লাখ
নির্বাচন ঘিরে কার কী কাজ, মন্ত্রণালয়গুলোকে জানাল ইসি
দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের চূড়ান্ত ভোটার তথ্য তুলে ধরে বিকালে ইসির এনআইডি উইং মহাপরিচালক একেএম হুমায়ুন কবীর জানান, তফসিল ঘোষণার জন্য ভোটার তালিকা মুদ্রণের প্রস্তুতি শেষ হয়েছে।

তিনি বলেন, “এ সংখ্যাটাই ভোটের জন্য চূড়ান্ত। আসনভিত্তিক ভোটার তালিকা (৩০০ আসনের জন্য) হয়েছে এবং সিডিও তৈরি হয়েছে, জেলা পর্যায়ে তা পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। এর উপর ভিত্তি করেই নির্বাচন হবে। কমিশনের কোনো সিদ্ধান্ত ও নির্দেশনা থাকলেও কিছু সংযোজন বা বিয়োজন হতে পারে। এরমধ্যে মৃত্যুবরণ থাকলে তাদের ভোটার তালিকা থেকে বাদ দেওয়া হতে পারে।”