নৌকায় ৯২ নতুন মুখ, ফিরলেন ১২ সাবেক এমপি

    0
    27

    আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাওয়া ২৯৮ জনের মধ্যে ৯২ জন নতুন করে স্থান পেয়েছেন। মাঝে বাদ পড়লেও ফের স্থান পেয়েছেন ১২ জন। রোববার বিকেলে বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করেন ওবায়দুল কাদের। একে একে ঘোষণা করেন ২৯৮ টি সংসদীয় আসনে নৌকার মাঝির নাম।

    এবার মনোনয়নে নতুন মুখ যারা, তাদের মধ্যে রয়েছেন রংপুর বিভাগের পঞ্চগড়-১ আসনে নাইমুজ্জামান ভুইয়া, ঠাকুরগাঁও-২ মো.মাজহারুল ইসলাম, ঠাকুরগাঁও-৩ মো. ইমদাদুল হক, নীলফামারী-৩ মো. গোলাম মোস্তফা, নীলফামারী-৪ জাকির হোসেন বাবুল, লালমনিরহাট-৩ মো. মতিয়ার রহমান, রংপুর-১ রেজাউল করিম রাজু, রংপুর-৩ তুষার কান্তি মন্ডল, রংপুর-৫ রাশেক রহমান, কুড়িগ্রাম-২ জাফর আলী, কুড়িগ্রাম-৩ সৌমেন্দ্র প্রসাদ পান্ডে, কুড়িগ্রাম-৪ বিপ্লব হাসান, গাইবান্ধা-১ আফরোজা বারী, গাইবান্ধা-৪ আবুল কালাম আজাদ।

    রাজশাহী বিভাগের বগুড়া-২ আসনে তৌহিদুর রহমান মানিক, বগুড়া-৩ সিরাজুল ইসলাম খান, বগুড়া-৪ হেলাল উদ্দিন কবিরাজ, বগুড়া-৫ মজিবর রহমান মজনু, বগুড়া-৭ মো. মোস্তফা আলম, নওগাঁ-৩ সৌরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তী, নওগাঁ-৪ নাহিদ মোরশেদ, রাজশাহী-২ মোহাম্মদ আলী, রাজশাহী-৩ আসাদুজ্জামান আসাদ, রাজশাহী-৪ আবুল কালাম আজাদ, রাজশাহী-৫ মো. আব্দুল ওয়াদুদ, সিরাজগঞ্জ-২ জান্নাত আরা হেনরী, সিরাজগঞ্জ-৪ শফিকুল ইসলাম, পাবনা-৪ গালিবুর রহমান শরীফ।

    খুলনা বিভাগের মেহেরপুর-২ আসনে আবু সালেহ মোহাম্মদ নাজমুল হক, ঝিনাইদহ-৩ সালাউদ্দিন মিরাজী। যশোর-২ তৌহিদুজ্জামান, যশোর-৪ এনামুল হক বাবু, মাগুরা-১ সাকিব আল হাসান, বাগেরহাট-৪ বদিউজ্জামান সোহাগ, খুলনা-১ ননি গোপাল মন্ডল, খুলনা-৩ এস এম কামাল হোসেন, খুলনা-৬ মো. রশীদুজ্জামান, সাতক্ষীরা-১ ফিরোজ আহমেদ স্বপন, সাতক্ষীরা-২ মো. আসাদুজ্জামান বাবু, সাতক্ষীরা-৪ এস এম আতাউল হক, বরগুনা-২ সুলতানা নাদিরা, বরিশাল-৩ খালেদ হোসাইন, বরিশাল-৪ ড. শাম্মী আহমদ, বরিশাল-৬ আব্দুল হাফিজ মল্লিক, পিরোজপুর-২ কানাই লাল বিশ্বাস, পিরোজপুর-৩ মো. আশরাফুর রহমান।

    ময়মনসিংহ বিভাগের জামালপুর-১ আসনে এসেছেন নুর মোহাম্মদ, জামালপুর-৪ মাহবুবুর রহমান, জামালপুর-৫ আবুল কালাম আজাদ, শেরপুর-৩ শহিদুল ইসলাম, ময়মনসিংহ-৩ নিলুফা আনজুম, ময়মনসিংহ-৪ মোহাম্মদ মোহিত উর রহমান, ময়মনসিংহ-৫ আব্দুল হাই আকন্দ, ময়মনসিংহ-৮ আব্দুস সাত্তার, ময়মনসিংহ-৯ আব্দুস সালাম, নেত্রকোণা-৫ আহমদ হোসেন।

    ঢাকা বিভাগ:

    টাঙ্গাইল-৩ কামরুল হাসান খান, টাঙ্গাইল-৪ মো. মাজহারুল ইসলাম তালুকদার, টাঙ্গাইল-৫ মো. মামুনুর রশিদ, কিশোরগঞ্জ-২ আব্দুল কাহার আকন্দ, কিশোরগঞ্জ-৩ মো. নাসিরুল ইসলাম খান, মানিকগঞ্জ-১ মো. আব্দুস সালাম, মুন্সীগঞ্জ-১ মহিউদ্দিন আহমেদ, ঢাকা-৫ হারুনুর রশিদ মুন্না, ঢাকা-৭ সোলাইমান সেলিম, ঢাকা-১০ ফেরদৌস আহমেদ, ঢাকা-১১ মো. ওয়াকিল উদ্দিন, ঢাকা-১৪ মাইনুল হোসেন খান নিখিল, গাজীপুর-৩ রুমানা আলী, নরসিংদী-৩ ফজলে রাব্বী খান, ফরিদপুর-৩ শামীম হক।

    সিলেট বিভাগের সুনামগঞ্জ-১ আসনে মনোনয়ন পেয়েছেন রনজিত চন্দ্র সরকার, সুনামগঞ্জ-২ চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ, সুনামগঞ্জ-৪ মো. সাদিক, সিলেট-৫ মাসুক উদ্দিন আহমেদ, মৌলভীবাজার-২ শফিউল আলম চৌধুরী, মৌলভীবাজার-৩ মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান, হবিগঞ্জ-১ ডা. মো. মুশফিক হোসেন চৌধুরী, হবিগঞ্জ-২ ময়েজ উদ্দিন শরিফ।

    চট্টগ্রাম বিভাগের ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ আসনে ফয়জুর রহমান, কুমিল্লা-১ ইঞ্জি. আব্দুস সবুর, কুমিল্লা-৮ আবু জাফর মো. শফিউদ্দিন, চাঁদপুর-১ ড. সেলিম মাহমুদ, ফেনী-১ আলাউদ্দিন আহমেদ চৌধুরী, ফেনী-৩ আবুল বাশার, লক্ষ্মীপুর-৪ ফরিদুন্নাহার লাইলী, চট্টগ্রাম-১ মাহবুব উর রহমান, চট্টগ্রাম-২ খাদিজাতুল আনোয়ার, চট্টগ্রাম-৪ এসএম আল মামুন, চট্টগ্রাম-৫ মো. আব্দুস সালাম, চট্টগ্রাম-১২ মোতাহেরুল ইসলাম, কক্সবাজার-১ সালাউদ্দিন আহমেদ।

    এছাড়াও আগে দলের মনোনয়ন পেয়েছিলেন, মাঝে বাদ পড়েছিলেন এমন বেশ কয়েকজনকে এবার মনোনয়নে দেওয়া হয়েছে। তারা হলেন সিরাজগঞ্জ-৬ আসনের চয়ন ইসলাম, নেত্রকোণা-১ মোস্তাক আহমেদ রুহী, টাঙ্গাইল-৮ অনুপম শাহজাহান জয়, ফরিদপুর-১ আব্দুর রহমান, ঢাকা-৪ সানজিদা খানম, ঢাকা-৬ সাঈদ খোকন, ঢাকা-৮ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, ঢাকা-১৩ জাহাঙ্গীর কবির নানক, সিলেট-২ শফিকুর রহমান চৌধুরী, বরিশাল-২ তালুকার মোহাম্মদ ইউনুস, চাঁদপুর-২ মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া ও নোয়াখালী-৬ মোহাম্মদ আলী।

    জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে ৩৩৬২টি মনোনয়ন ফরম বিক্রি করে আওয়ামী লীগ। সেখানে দেখা গেছে, ৩০০ আসন হিসাবে প্রতিটিতে গড়ে ১১ জনের বেশি মনোনয়নপ্রত্যাশী ছিলেন। সেখান থেকে বেছে নেওয়া হয়েছে ১ জনকে।