বরিশালে ইউএনওর বাসায় হামলা: কাউন্সিলর মান্না কারাগারে

0
14

বরিশাল সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুনিবুর রহমানের সরকারি বাসভবনে হামলার ঘটনায় করা মামলায় গ্রেফতার বরিশাল সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ সাইয়েদ আহমেদ মান্নাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত।

শনিবার (২১ আগস্ট) ঢাকা মহানগর হাকিম বাকী বিল্লাহ তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এদিন র‌্যাব তাকে আদালত হাজির করে ৫৪ ধারায় গ্রেফতার দেখিয়ে কারাগারে পাঠানোর আবেদন করে। পরে তাকে বরিশাল সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) বাসভবন এলাকায় পুলিশ ও আওয়ামী লীগের মধ্যে সংঘর্ষের মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে তোলা হবে বলে আবেদনে জানায় র‌্যাব। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। আদালতের আদেশে তাকে কেরানীগঞ্জের ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।

এর আগে রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে নিশ্চিত করেন র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

তিনি বলেন, হামলার ঘটনায় দুটি মামলা করা হয়। এই দুই মামলার এজাহারনামীয় আসামি ছিলেন শেখ সাঈদ আহমেদ মান্না। শুক্রবার রাতে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে হামলার ঘটনায় করা মামলার দুই আসামিকে তুলে নেওয়ার অভিযোগ ওঠে। তাদের মধ্যে একজন ছিলেন কাউন্সিলর সাইয়েদ আহমেদ মান্না।

ওই সময় কাউন্সিলর মান্নার বড় ভাই শেখ মাসুদ আহমেদ রানা জাগো নিউজকে বলেন, ‘আমার ভাই মান্না শুক্রবার (২০ আগস্ট) রাত পৌনে ১০টার দিকে ঢাকার মোহাম্মদপুর শিয়া মসজিদ এলাকায় বোনের বাড়িতে ছিলেন। সেখান থেকে টেনেহিঁচড়ে সাদা পোশাকধারীরা তাকে তুলে নিয়ে গেছে। বাধা দিতে গেলে নিজেদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য পরিচয় দেয় এবং জিজ্ঞাসাবাদের জন্য মান্নাকে নিয়ে যাওয়ার কথা জানায়। পরে পুলিশ তাকে আটকের কথা অস্বীকার করেছে।’

বরিশাল সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুনিবুর রহমানের সরকারি বাসভবনে হামলার ঘটনায় ১২ জনকে আটক করেছে পুলিশ। আটক সবাই আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মী বলে জানা গেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত নগরীর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।

পুলিশের একটি সূত্র জানায়, ইউএনওর সরকারি বাসভবনে হামলার ঘটনায় মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন ওরফে ফিরোজ, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি অলিউল্লাহ অলি, নগরীর ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকসহ ১১ জনকে আটক করা হয়েছে।

এর আগে রাতে ঘটনাস্থল থেকে মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হাসান বাবুকে আটক করা হয়।