সীতাকুন্ডে সংবাদিকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল আইনে মামলা ঃ হুমকি

0
233


চট্টগ্রামের সীতাকুন্ড উপজেলায় প্রাচীন জলাশয় ভরাট ও দখল করে বিভিন্ন স্থাপনা নির্মাণের সংবাদ প্রকাশের জের ধরে এক সাংবাদিকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে থানায় মামলা করেছে একটি মহল। এছাড়া ওই সাংবাদিকের বাসায় বৃহস্পতিবার রাতে কতিপয় ব্যক্তি হামলা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
জানা গেছে, সীতাকুন্ড বাজারে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের দেবোত্তর সম্পত্তির মধ্যে বিশালাকার দেওয়ান দিঘী প্রায় বিলিন হয়ে পড়েছে। দিঘীটির বিভিন্ন অংশ ভরাট করে ধীরে ধীরে গড়ে উঠছে নানান স্থাপনা। দিঘীটি বেদখল হচ্ছে বলে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের রয়েছে অভিযোগ। সম্প্রতি এই দখলবাজির বিষয়ে আইনী পদক্ষেপ নেয়ার কথাও বলেছেন সীতাকুন্ড ¯্রাইন কমিটির সাধারণ সম্পাদক।
দিঘীটি ভরাট হয়ে যাওয়ার ব্যাপারে একাধিক সংবাদ প্রকাশ করেন দৈনিক আমাদের অর্থনীতি ও সংবাদ টুডে ডট কম প্রতিনিধি ইব্রাহিম খলিল। সংবাদ প্রকাশের জের ধরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যক্তি সাংবাদিক ইব্রাহিমকে অশ্লীল গালাগালি এবং অব্যাহত হুমকি দিতে থাকে। সর্বশেষ বৃহস্পতিবার সীতাকুন্ড থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ওই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক মামলা করা হয়।
বিষয়টি নিশ্চিত করে সীতাকুন্ড মডেল থানার ওসি ফিরোজ মোল্লা সংবাদিকদের জানান, ইব্রাহিম খলিলের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেছেন মো. হেদায়েত উল্লাহ। সীতাকুন্ড থানায় মামলা নম্বর-৬।
এব্যাপারে সাংবাদিক ইব্রাহিম খলিল জানান, তাঁর প্রকাশিত সংবাদে দিঘী দখলের জন্য কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের সুনির্দিষ্ট নাম উল্লেখ করা হয়নি। তারপরও তাঁকে হয়রানি করার লক্ষ্যে উদ্দেশ্যমূলকভাবে মামলা করা হয়েছে এবং বিভিন্ন মহল থেকে পুলিশকে চাপ দিয়ে তাঁকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এছাড়া সংবাদ প্রকাশের পর থেকে কতিপয় ব্যক্তি তাঁকে মারধর ও প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে আসছে। সর্বশেষ বৃহস্পতিবার রাতে তাঁর অনুপস্থিতিতে ৮/১০ যুবক বাসায় ঢুকে মারধরের জন্য তাঁকে খুঁজতে আসে বলে অভিযোগ করেন ইব্রাহিম খলিল। এসময় ওই ব্যক্তিরা বাসার বিভিন্ন জিনিসপত্র তছনছ এবং তাঁর স্ত্রী ও পরিবারের সদস্যদের হেনস্তা করেছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। এব্যাপারে আইনগত পদক্ষেপ নেয়ার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি। সাংবাদিক ইব্রাহিম খলিল তাঁর নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করে এব্যাপারে প্রশাসনের উর্ধতন মহলের সহায়তা কামনা করেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে